সুস্থ জীবনের জন্যে কিছু সামান্য নিয়ম :-

সকালে ওঠবার সময় নীচের কথাগুলো মনে রাখতে হবে –

সূর্য ওঠার আগেই উঠতে হবে। ওঠার সময় ভগবানের নাম নিয়ে ভালো চিন্তা মনে রেখে উঠতে হবে। ওঠার সময় হঠাৎ ওঠা চলবে না। ১০-১৫ সেকেন্ড বোসে তারপর উঠতে হবে।

সকালে ঠাণ্ডা জলেই স্নান করা উচিত।

খাবার খাওয়ার সময় এবং জল পান করার সময় নীচের কথাগুলো মাথায় রাখতে হবে –

● স্নান করার অন্তত ৪৫ মিনিট পর জলখাবার খেতে হবে।

● চিবিয়ে খেতে হবে। খাবার খাওয়ার সময় জল খাওয়া চলবে না। কিন্তু খাবার আধঘণ্টা পর খাওয়া যাবে। আর একসাথে অনেক জল না খেয়ে একঘণ্টা অন্তর এক গেলাস জল খাওয়া উচিত।

● নুন, চিনি এবং পাঁপড় কম মাত্রায় খেতে হবে। চা, কফি এবং ময়দা থেকে তৈরি হওয়া খাবার থেকে দূরে থাকতে হবে।

● সাধারণ লোকের দিনে কমপক্ষে ২ লিটার জল খাওয়া প্রয়োজন। কিন্তু দুধ, চা এবং তরমুজ খাবার সাথে সাথে জল খাওয়া উচিত নয়।

● শুধু season এর নয়, যেখানে থাকা হয় ওইখানের আনাজ, ফল এবং সবজি খাওয়া উচিত। এর মানে হল, যেখানে যে জিনিসটা হয় না সেটা না খাওয়াই ভালো।

● Non-veg এবং মদ থেকে দূরে থাকতে হবে।

● শরীরে ব্যাথা হলে টক জিনিস খাওয়া চলবে না।

● রাতে খাওয়ার অন্তত দুই ঘণ্টা পর ঘুমোতে হবে।

● দাঁড়িয়ে জল খাওয়া চলবে না। যাই হোক সেটা বসেই খেতে হবে।

রাতে ঘুমোতে যাবার আগে এবং ওঠবার পর কিছু জিনিস খেয়াল রাখতে হবে –

● রাতে খাওয়ার অন্তত দুই ঘণ্টা পর ঘুমোতে হবে। আর রাতে ১০.৩০ এর আগে ঘুমনোই ভালো।

● শোওয়ার সময় পাশ ফিরে শুতে হবে এবং পাশ ফিরেই হাত এর সাহায্য নিয়ে উঠতে হবে।

● শোওয়ার সময় মন এবং শরীর relax করে শোয়া উচিত। মাথার তলায় হাত রাখা যাবে না এবং পা সোজা রাখতে হবে।

● জানালা খুলে এবং ঘর অন্ধকার করেই শোয়া উচিত।

● সূর্য ওঠার আগেই উঠতে হবে।

● ওঠবার সময় ঈশ্বরের নাম নিয়ে এবং ভালো চিন্তা-ভাবনা নিয়ে উঠতে হবে।

● ওঠবার সময় তাড়াতাড়ি উঠলে চলবে না। ওঠার সাথে সাথেই ঠাণ্ডা জল খাওয়া চলবে না। উষ্ণ গরম জল খেতে হবে এবং তার কিছুক্ষণ পরে ঠাণ্ডা জল খাওয়া যাবে।

● সব season -এই ঠাণ্ডা জলে স্নান করা উচিত। আর স্নানের ৪৫ মিনিট পরেই কোনো খাবার খাওয়া উচিত।